জাগো ফাউন্ডেশনের সাথে বিকাশ-এর চুক্তি স্বাক্ষর

জুন ২৩, ২০১২ ঢাকা, বাংলাদেশ

সম্প্রতি জাগো ফাউন্ডেশন এবং ব্র্যাক ব্যাংকের বিকাশ-এর মধ্যে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। এই চুক্তির ফলে জাগো ফাউন্ডেশনের অনুদান সংগ্রহ অনেক সহজতর হবে। জাগো ফাউন্ডেশন-এর প্রতিষ্ঠাতা জনাব করবী রাকসান্দ এবং বিকাশ লিমিটেড-এর হেড অব বিজনেস ডেভলপমেন্ট জনাব আদেল আহমেদ নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে চুক্তি স্বাক্ষর করেন।

তরুণদের সংগঠন জাগো ফাউন্ডেশন শিক্ষা প্রসারের মাধ্যমে দরিদ্র জনগোষ্ঠীর উন্নতির জন্যে কাজ করছে। জাগো উদ্দ্যোগের একটি প্রধান কার্যক্রম হচ্ছে বঞ্চিত শিশুদের “ফ্রি-অব-কস্ট স্কুল”, যেখানে ব্যাক্তিগত স্পন্সরশিপের মাধ্যমে একজন দাতা একজন শিশুর পড়াশোনার খরচ বহন করেন। এই চক্তির মাধ্যমে স্পন্সরশিপের অর্থ নিয়মিত ভাবে এবং সহজে সংগ্রহ করা যাবে যা সংগ্রহকারী এবং স্পন্সর উভয়ের জন্যেই অত্যন্ত সুবিধাজনক হবে। এছারা দূরত্বের কারণে যে সকল সমর্থক যারা ইচ্ছা থাকলেও অনুদান দিতে যেতে পারেন না তারাও এখন খুব সহজেই অনুদান দিতে পারবেন।  

ব্র্যাক ব্যাংক প্রতিষ্ঠান বিকাশ বিভিন্ন ধরনের মোবাইল ফিন্যান্সিয়াল সেবা প্রদান করে আসছে যার মাধ্যমে গ্রাহকরা দেশের এক প্রান্ত থেকে অপর প্রান্তে টাকা পাঠাতে বা গ্রহন করতে পারেন। বিকাশ-এর প্রধান লক্ষ হচ্ছে দেশের অর্থনৈতিক প্রক্রিয়াকে আরও ত্বরান্বিত করার ক্ষেত্রে সকলকে অন্তর্ভুক্ত করা। বিকাশ-এর মাধ্যমে অনুদান প্রদানের এই অনন্য ব্যাবস্থা জাগো ফাউন্ডেশনের অনুদান সংগ্রহের বিদ্যমান সমস্যাসমূহ দূর করবে এবং অনুদানকারীগণ বিকাশ-এর মাধ্যমে খুব সহজে, দ্রুত এবং নিরাপদ উপায়ে অর্থ পাঠিয়ে সমাজের উন্নয়নে অংশ নিতে পারবেন।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে জাগো ফাউন্ডেশনের কর্পোরেট অ্যাফেয়ার্স এর নদী রশিদ, জেনারেল সেক্রেটারি জিহাদুজ জামান ও এক্সিকিউটিভ অ্যাসিস্ট্যান্ট তাসমিয়া আহমেদ এবং বিকাশ লিমিটেডের হেড অব মার্কেটিং সানিয়া মাহমুদ, বিজনেস অ্যানালিস্ট এস এম জাহাদুল আরাফিন, অ্যাসিস্ট্যান্ট ম্যানেজার আন্দালিব আলম সহ উভয় প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।